Samsung Galaxy A34 Price In Bangladesh। সস্তায় 5G নেটওয়ার্ক সঙ্গে ৩ ক্যামেরার ফোন। কেমন পারফরম্যান্স করলো Samsung এর নয়া ফোন? পড়ুন রিভিউ

Samsung Galaxy A34


বর্তমান যুগে যখন সকল ফোন কোম্পানি গুলো তাদের সক্ষমতা দেখাতে ব্যস্ত তখন Samsung কোম্পানি ও কোন দিক থেকে পিছিয়ে নেই। অন্য সকল মিড রেঞ্জের ফোন গুলোর সাথে তালমিলিয়ে চলার জন্য Samsung ও এবার নিয়ে আসছে Samsung Galaxy A34 । ফোনটি প্রথম বাজারে নিয়ে আসে 2023 সালে মার্চ মাসে 24 তারিখে। তো চলুন এবার দেখে নেওয়া যাক এই মিড রেঞ্জের ফোনে কি কি থাকছে।

ফোনের বডি

ফোনটির ডাইমেনসিটি 161.3 x 78.1 x 8.2 mm (6.35 x 3.07 x 0.32 in) ও এই ফোনের ওজন 199 গ্ৰাম। হাতে নিলে খুব যে ভারি তা মনে হয় না। ডিসপ্লে এর ওপরে (Gorilla Glass 5) দেওয়া হয়েছে ব্যাকপার্ট প্লাস্টিক এর রাখা হয়েছে। এই ডিভাইজ টি IP67 dust/water resistant এর মানে এই ফোনটি 1 মিটার পানির নিচে 30 মিনিট এর মতো রাখতে পারবেন কোন রকম সমস্যা হবে না।

ফোনের ডিজাইন

ফোনটিতে এবার প্রিমিয়াম কয়েলিটি ডিজাইন দেওয়া হয়েছে। ব্যাকপার্টে ম্যাট ফিনিস করা হয়েছে এবার। ফোনের ডিসপ্লেতে পাঞ্চুয়াল নচ দেওয়া হয়েছে। ফোনটির দাম হিসেবে এই নচ একদম আশা করা যায় না। অন্যান্য কোম্পানি যখন এই নচ এর ব্যবহার করা ছেড়ে দিয়েছি তখন Samsung কোম্পানি এই নচ এর ব্যবহার করছে এবার। অন্য ফোন কোম্পানি গুলো এর থেকে কম বাজেটের ফোন গুলো এই নচ ব্যবহার করেনি। নচ এর দিক টা ছাড়া ডিসপ্লেটি সব দিক দিয়ে ভাল। ব্যাকপার্টে 3 টা ক্যামেরা সহ ম্যাট ফিনিস ডিজাইন করা হয়েছে। ফিঙ্গারপ্রিন্টা ফোনের সাইটে বা পাওয়ার বাটনে ব‌্যবহার করা হয়েছে বাকি সব বাটন, পোটস ঠিকঠাক জায়গায় দেওয়া আছে।

Samsung Galaxy A34


ডিসপ্লে

এটিতে 6.6 inches এর একটি বড়ো Super AMOLED ডিসপ্লে দেওয়া হয়েছে ও এই ডিসপ্লে রেজুলেশন দেওয়া হয়েছে 1080 x 2340 pixels । ডিসপ্লে প্রোটেকশন হিসেবে এবার Samsung কোম্পানি Corning Gorilla Glass 5 ব্যবহার করছে । আর এই ডিসপ্লে রিফ্রেশ রেট দেওয়া হয়েছে 120Hz যার কারনে টার্চ রেসপন্স অনেক ফাস্ট পাবেন। ডিসপ্লে টিতে কালার কম্বিনেশন, টার্চ রেসপন্স, সারপনেস, ডিটেলস, ভিজিবিলিটি, সব কিছু ঠিকঠাক দেওয়া হয়েছে ভাল রকম মাল্টি ওয়াচিং ও করতে পারবেন। এই বাজেটে ডিসপ্লে সব কিছু ভাল দেওয়া হয়েছে তবে সব ভাল থাকবে এমনটা হতে পারে না কোন না কোন সমস্যা তো থাকবেই এই ফোনেও আছে এই বাজেটে এবার Samsung কোম্পানি ওয়াটার ড্রপ নচ ব্যবহার করছে। এইটা যদি Samsung কোম্পানি আরো আপডেট করতো ফোনটা সামনে থেকে দেখতে আরো ভাল হতো।

প্রসেসর 

ফোনটিতে এবার Mediatek MT6877V Dimensity 1080 (6 nm) একটি শক্তিশালী প্রসেসর দেওয়া হয়েছে, CPU দেওয়া হয়েছে Octa-core (2x2.4 GHz Cortex-A78 & 6x2.0 GHz Cortex-A55) ও GPU দেওয়া হয়েছে Mali-G68 MC4 । এই ধরনের প্রসেসর দিয়ে সারাদিন এর টুকিটাকি কাজ যেমন- ফেসবুক, হটচ্যাপ, ইউটিউব, ব্রাউজিং করেও ভারি ভারি সকল গেম আপনার খেলতে পারবেন। গেমিং এর ক্ষেএে এই ধরনের প্রসেসর থাকলে ফ্রেম ড্রপ, ল্যাগ, হিটিং ইসু কিছুই দেখা যাবে না এই ফোনে। বাজেট ডিভাইজ হিসেবে ভাল একটি প্রসেসর দেওয়া হয়েছে এই ফোনে।

সফটওয়্যার

আর দশটা বাজেট ডিভাইজ এর মতো এই ফোনে Android 13, One UI 5 এ্যানড্রাইড অপারেটিং সিস্টেম দেওয়া হয়েছে। তবে Samsung কোম্পানি থেকে এই সফটওয়্যার আপডেট এর মাধ্যমে আরো উন্নতি করা হবে বলে জানিয়েছেন এই কোম্পানি। 

ভ্যারিয়েন্ট

ফোনটি আপনারা তিনটি ভ্যারিয়েন্ট এ পাবেন (8GB(2GB ভার্চুয়াল ‌ র‌্যাম দেওয়া হয়েছে)+128GB) যার দাম রাখা হয়েছে 49,999 টাকা (8GB+128GB) দাম রাখা হয়েছে 30,000 টাকা (8GB+256GB) দাম রাখা হয়েছে 34,000 টাকা। এই ফোনে 2 টা সিম বা একটি সিম ও একটি মেমোরি কার্ড ব্যবহার করতে পারবেন।

নেটওয়ার্ক

ফোনটিতে এবার 5G নেটওয়ার্ক এর সুবিধা থাকছে ও এর পাশাপাশি 2G,3G,4G এই তিনটা নেটওয়ার্ক ও সুবিধা পাবেন।

ক্যামেরা 

এই ফোনের পিছনের 3 টা ক্যামেরা দেওয়া হয়েছে 48 MP, f/1.8, 26mm (wide), 1/2.0", 0.8µm, PDAF, OIS এর মেইন ক্যামেরা ও 8 MP, f/2.2, 123˚, (ultrawide), 1/4.0", 1.12µm + 5 MP, f/2.4, (macro) এই 3 টা ক্যামেরা দেওয়া হয়েছে। এই ক্যামেরার ছবি কয়েলিটি খুবই ভাল ছবির ডিটেলস, সারপনেস, কালার সব কিছু ঠিকঠাক আছে রাতের বেলায় নাইট মোডে ও ছবি তুললে পারবেন সাধারণ ছবির থেকে নাইট মোডে ছবি আরো ভাল হবে। ফোনটির সামনে 13 MP, f/2.2, (wide), 1/3.1", 1.12µm একটি সেলফি ক্যামেরা দেওয়া হয়েছে এই ক্যামেরার ছবি ও বেশ ভাল সারপনেস কালার যথেষ্ট ভাল তবে প্রোটেড মুডে ছবি তুললে ছবি একটু বেশি স্মুথ করে দেয়। পিছনে 48 MP ক্যামেরা ও সামনে 13 MP ক্যামেরা দিয়ে 4K@30fps, 1080p@30/60fps,4K@30fps, 1080p@30fps এ ভিডিও করতে পারবেন । ভিডিও কয়েলিটি ও ভাল পাবেন কালার কম্বিনেশন এ কোন কমতি পাবেন না এই ফোনে।

ব্যাটারি

ফোনটিতে 5000mAh এর ব্যাটারি দেওয়া হয়েছে ও এই ব্যাটারিটি চার্জ দেওয়ার জন্য 25 ওয়ার্ড এর চার্জার দেওয়া হয়েছে। ব্যাটারিটি ফুল চার্জ দিয়ে আপনারা 2 দিন এর বেশি সময় চালাতে পারবেন।

বিশেষ বিশ্লেষণ

ফোনটিতে আপনার 5000mAh এর ব্যাটারি সহ 48 মেগাপিক্সেল এর মেইন ক্যামেরা পাচ্ছেন। এই বাজেটে ভাল একটি প্রসেসর ও দেওয়া হয়েছে পাবজি, ফ্রি ফায়ার সকল ধরনের গেম এই ফোন দিয়ে খেলতে পারবেন। 5G নেটওয়ার্ক এর সুবিধা থাকছে এই ফোনটিতে। প্লাস্টিক বডি হওয়ার কারনে ফোনটি হাত থেকে পড়ে গেলে ফেটে যাওয়ার সম্ভাবনা আছে ব্যাকপার্টে দাগ হওয়ার সম্ভাবনা আছে এই ফোনটিতে।


Samsung Galaxy A34


এটি কবে বাজারে আসবে ?

2023, March 24 তারিখ প্রথম বাজারে আসে।

এই ফোনের দাম কেমন হবে ?

ফোনটি দাম রাখা হয়েছে 49,999 টাকা।

ফোনটি কতো জিবি র‌্যাম ও রোম এর পাওয়া যাবে ? 

(6GB+128GB) (8GB+256GB) (8GB+128GB) এই তিনটি ভ্যারিয়েন্ট এ পাবেন।

ফোনটিতে কেমন ডিসপ্লে দেওয়া হয়েছে ? 

6.6 inches Super AMOLED ডিসপ্লে দেওয়া হয়েছে যার রেজুলেশন 1080 x 2340 pixels

ফোনটিতে কেমন চিপছেট ও প্রসেসর দেওয়া হয়েছে ?

Mediatek MT6877V Dimensity 1080 (6 nm) চিপছেট দেওয়া হয়েছে ও Android 13, One UI 5 সফটওয়্যার দেওয়া হয়েছে।

ফোনটিতে ক্যামেরা ও ভিডিও কয়েলিটি কেমন হবে ? 

পিছনে 3 টা ক্যামেরা দেওয়া হয়েছে 48+8+5 মেগাপিক্সেল ও সামনে 13 মেগাপিক্সেল এর ক্যামেরা দেওয়া হয়েছে।

ফোনটি কি 5G নেটওয়ার্ক সাপোর্ট করে?

হ্যা ফোনটি 5G নেটওয়ার্ক সাপোর্ট করবে ও GSM / HSPA / LTE ও চালাতে পারবেন।

এই ফোনে কেমন ব্যাটারি দেওয়া হয়েছে ?

5000mAh এর ব্যাটারি ও 25 ওয়ার্ড এর চার্জার দেওয়া হয়েছে।

ফোনটিতে কি কি সেন্সর দেওয়া হয়েছে ? 

Fingerprint (under display, optical), accelerometer, gyro, compass

Virtual proximity sensing

এই ফোনটি কোন দেশ তৈরি করেছে ?

স্যামসাং এটি তৈরি করেছিল এবং ফোনটি দক্ষিণ কোরিয়ায় তৈরি হয়েছে।

Post a Comment (0)
Previous Post Next Post